, সোমবার, ২০ জানুয়ারী ২০২০

admin

চট্টগ্রামে মহান মুক্তিযুদ্ধের বীর শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদন

প্রকাশ: ২০১৯-১২-১৬ ০৯:৪২:৩৪ || আপডেট: ২০১৯-১২-১৬ ০৯:৪২:৩৪

Spread the love

চট্টগ্রাম: প্রতিবছরের মতো এবারও শহীদ মিনারে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা জানানোর মধ্য দিয়ে মহান মুক্তিযুদ্ধের বীর শহীদদের স্মরণ করা হচ্ছে চট্টগ্রামে।

সোমবার (১৬ ডিসেম্বর) সকাল ৬টা ২৮ মিনিটে প্রথমে শহীদ মিনারে ফুল দেন ভূমিমন্ত্রী সাইফুজ্জামান চৌধুরী জাবেদ।
তিনি বলেন, জাতির পিতার স্বপ্ন ছিল স্বনির্ভর দেশ। সেই স্বপ্ন পূরণের লক্ষ্যে কাজ করছেন বঙ্গবন্ধু কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা জানান ভূমিমন্ত্রী সাইফুজ্জামান চৌধুরী জাবেদ।এরপর ফুল দেন চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশনের মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দীন। বিভাগীয় কমিশনার মো. আবদুল মান্নান, ডিআইজি চট্টগ্রাম খন্দকার গোলাম ফারুক, পুলিশ কমিশনার মাহাবুবর রহমান, জেলা প্রশাসক মো. ইলিয়াস হোসেন, পুলিশ সুপার নুরে আলম মিনা, নগর মুক্তিযোদ্ধা সংসদ কমান্ডার মোজাফফর আহমদ প্রমুখ।

এর আগে সশস্ত্র অভিবাদন জানান চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পুলিশের একটি চৌকস দল।

দেখতে দেখতে সর্বস্তরের মানুষে লোকারণ্য হয়ে যায় শহীদ মিনার এলাকা। ফুলে ফুলে ভরে যায় শহীদ বেদি। জয় বাংলা জয় বঙ্গবন্ধু, বিজয়ের এ দিনে মুজিব তোমায় মনে পড়ে, পদ্মা মেঘনা যমুনা তোমার আমার ঠিকানা, লাল সবুজের পতাকায় মুজিব তোমায় দেখা যায় ইত্যাদি স্লোগানে প্রকম্পিত হয় শহীদ মিনার এলাকা।

মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দীন সাংবাদিকদের বলেন, আজ ষোলই ডিসেম্বর। বাঙালি জাতির গৌরবের দিন। দিবসটি স্মরণীয় করে রাখতে চট্টগ্রামে বর্ণাঢ্য কর্মসূচি হাতে নেওয়া হয়েছে। জাতির পিতা আমাদের স্বাধীনতা দিয়েছেন। এ স্বাধীনতার জন্য বীর মুক্তিযোদ্ধারা জীবন বাজি রেখে যুদ্ধ করেছেন। ৩০ লাখ বাঙালি প্রাণ দিয়েছেন। ২ লাখ মা বোন সম্ভ্রম হারিয়েছেন। আমরা গভীর কৃতজ্ঞতার সঙ্গে স্মরণ করি।

সঞ্চালনায় ছিলেন নগর আওয়ামী লীগের আইন বিষয়ক সম্পাদক অ্যাডভোকেট শেখ ইফতেখার সাইমুল চৌধুরী।

নগর পুলিশের উপ কমিশনার আরেফিন জানান, এবার চট্টগ্রাম কেন্দ্রীয় শহীদ মিনার এলাকায় চার স্তরের নিরাপত্তা ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে। সোয়াড, সিটি এসবি, ডিবি, ইউনিফর্ম পুলিশ মিলে ২৫০ জন সদস্য দায়িত্ব পালন করছেন। এর বাইরে বিভিন্ন সংস্থার সদস্যরা দায়িত্ব পালন করছেন। সুত্রঃ বাংলা নিউজ ।

সাম্প্রতিক ইরান মার্কিন উত্তেজনা ও ইরাকে মার্কিন ঘাটিতে হামলার পর বেশ বিপদে আছে মার্কিন স্থাপনা।
অবশেষে খোঁজ পাওয়া গেল আলোচিত মাদ্রাসা শিক্ষকের। তারা র‌্যাব ১১-এর হেফাজতে আছেন। রাতেই সেখান থেকে তাদেরকে
দুবাই প্রবাসীর অ্যাকাউন্ট থেকে ১৩ লাখ টাকা গায়েবের ঘটনায় সন্দেহভাজন এক নারীকে খুঁজছে গোয়েন্দা পুলিশ
কুয়েতের সড়কে বেপরোয়া গতিতে প্রাইভেট গাড়ী চালিয়ে মারাত্মক সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত হল এক বাংলাদেশী যুবক
আরটিএমনিউজ২৪ডটকম, নিউজ ডেস্কঃ রয়টার্সের খবরে বলা হয়েছে, তুরস্কের প্রেসিডেন্ট তাইপ এরদোগান ইউরোপকে লিবিয়ায় তাদেরকে সমর্থন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Logo-orginal