, শনিবার, ১১ জুলাই ২০২০

Avatar admin

রাঙ্গুনিয়ায় করোনার রিপোর্ট পেতে বিলম্ব, ঝুৃ্ঁকি বাড়ছে

প্রকাশ: ২০২০-০৫-৩১ ০০:০৯:২০ || আপডেট: ২০২০-০৫-৩১ ০০:২০:০১

Spread the love

ইসমাঈল হোসেন নয়ন, রাঙ্গুনিয়া প্রতিনিধিঃ চট্টগ্রামের রাঙ্গুনিয়ায় করোনা পরীক্ষার ফলাফল পেতে ভোগান্তির অভিযোগ উঠছে।

ভুক্তভোগীরা বলছেন, নানা ঝামেলার পর নমুনা দিতে পারলেও ফল পেতে অপেক্ষা করতে হচ্ছে সপ্তাহ খানেক। অনেকেই ৮ থেকে ১০ দিনের মধ্যে রিপোর্ট না পেয়ে পুনরায় নমুনা দিচ্ছেন।

এই প্রতিবেদকসহ আরো একজন সংবাদকর্মী ২৩ মে রাঙ্গুনিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স নমুনা দেন। ফলাফল না পেয়ে এই বিষয়ে তিনি স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের ভারপ্রাপ্ত স্বাস্থ্য কর্মকর্তা বিশ্বজিৎ মহাজনের সাথে যোগাযোগ করেন কিন্তু ফলাফলের কোনো কিছুই জানাতে পারেননি তিনি। পরে সাবেক স্বাস্থ্য কর্মকর্তা রাজিব পালিতের সাথে যোগাযোগ করলে ওই সাংবাদিককে বলেন ২৩ তারিখের সব রিপোর্ট চলে গেছে। তিনি হাসপাতালের ল্যাব সংশ্লিষ্ট এক কর্মীর সাথে যোগাযোগ করতে বলেন। ওয়াহিদুল আলম টিটু নামে ওই কর্মীর সাথে যোগাযোগ করলে তিনি বলেন, বিআইটিআইডিতে সব নমুনা পাঠানো হয়েছে। কিন্তু এই নমুনা কোথায় গেছে তিনি বলতে পারেন না । তিনি বলেন বিআইটিআইডিতে চট্টগ্রাম ও চট্টগ্রামের বাইরে থেকে প্রচুর নমুনা পরীক্ষা করা হয়। তাই ওখানে একটু সময় লাগে।

বিআইটিআইডিতে গেলে তিনি বিষয়টি ভালভাবে দেখবেন জানিয়েছেন। ওই সংবাদকর্মী মানসিক প্রশান্তি না পেয়ে আজ শনিবার উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে যোগাযোগ করলে আবার নমুনা দিতে বলেন। তিনি নমুনা দিতে অপারগতা প্রকাশ করেন। পরে এই বিষয়ে ওই সংবাদকর্মী চট্টগ্রাম সিভিল সার্জন শেখ ফজলে রাব্বীর সাথে মু্ঠোফোনে যোগাযোগ করলে তিনি বলেন, ২৩ তারিখের সব রিপোর্ট চলে গেছে। পজিটিভ হলে জানতেন। হয়তো এটা নেগেটিভ রিপোর্ট। নেগেটিভ রিপোর্ট পেতে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের মাধ্যমে বিআইটিআইডিতে যোগাযোগ করতে হবে।” এদিকে সহকারী কমিশনার (ভূমি) মো.ফখরুল ইসলাম এবং তাঁর পরিবার ১৮মে করোনার নমুনা দেন। নয় দিন অপেক্ষা করার পর রিপোর্ট না আসায় উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের সংশ্লিষ্টদের পরামর্শ অনুযায়ী ২৬ মে আবারো জমা দেন নমুনা।

আজ শনিবার রাত পর্যন্ত তিনি নমুনার ফলাফল জানতে পারেননি। তিনি বলেন, ফলাফলের জন্য অপেক্ষা কত কষ্টের একটা বিষয় ভুক্তভোগী ছাড়া আর কেউ বুঝতে পারবেনা। নমুনা দেয়ার পর ফলাফল এক সপ্তাহ পরও পাওয়া যায়নি এমনটা অভিযোগ অন্তত ১০ ব্যক্তির। ইতিমধ্যে রাঙ্গুনিয়ার বিভিন্ন এলকায় ৩৬জন করোনা রোগী শনাক্ত হয়েছে। বাড়ছে রোগীর সংখ্যা। সংক্রমন ঠেকাতে হলে সবচাইতে গুরুত্বপূর্ণ কাজ হচ্ছে পরীক্ষা আর দ্রুত ফলাফল।

Logo-orginal