, রোববার, ২৫ অক্টোবর ২০২০

Avatar admin

কুয়েতে মাদক কারখানার সন্ধান, মিশর, ভারতীয় ও কুয়েতি মালিক

প্রকাশ: ২০২০-০৯-১৯ ০১:৩৩:২১ || আপডেট: ২০২০-০৯-১৯ ০১:৩৩:৪৫

Spread the love

কুয়েতের সালমিয়ায় একজন ভারতীয়, মিশরীয় এবং একজন কুয়েতী কর্তৃক পরিচালিত একটি ওষুধের কারখানায় মাদক তৈরির বিভিন্ন দ্রব্য আটক করেছে দেশটির মাদক দ্রব্য বিভাগ ।

আজ শুক্রবার (১৮ সেপ্টেম্বর) কুয়েত কাস্টমসের সহযোগিতায় ও অভ্যন্তরীণ মাদকদ্রব্য মন্ত্রনালয় সালমিয়ায় একজন মিশরীয় এবং একজন ভারতীয়কে গ্রেপ্তার করতে সক্ষম হয়েছে, যারা মাদকদ্রব্য জাতীয় পদার্থ উত্পাদন করছিলেন।

কতৃপক্ষের বরাত দিয়ে আরব টাইমস সংবাদের নিশ্চিত করেন ।

সুত্রে প্রকাশ, এশিয়ার একটি দেশ থেকে কুয়েতে আসা একটি পোষ্টাল পার্সেল জব্দ করেছিল কাস্টমস কতৃপক্ষ, যার মধ্যে ২ কিলো মেথামফেটামিন রয়েছে।

সে সুত্রে পরিচালিত তদন্তে পার্সেলের মালিকের সন্ধান সম্পর্কে তথ্যের ভিত্তিতে তদন্তটি গুরুত্ব সহকারে পরিচালিত হলে জানাযায়, পার্সেল নেওয়ার সময় ১ম আটক হওয়া তিনি একজন মিশরীয় নাগরিক।

জিজ্ঞাসাবাদের সময়, মিশরীয় নাগরিক তিনি স্বীকার করেন যে, পার্সেলটি তাঁর পাচারের উদ্দেশ্যে ছিল এবং তার সাথে আরো দু’জন অংশীদার রয়েছে, যাদের মধ্যে একজন কুয়েতের নাগরিক এবং আরেকজন ভারতীয় প্রবাসী ।

তারা সালমিয়ার একটি প্রাইভেট বাসায় মাদক দ্রব্য প্রস্তুত করার কথা সময় স্বীকার করেন, যদিও কুয়েতি নাগরিককে এখনো আটক করতে পারেনি পুলিশ ।

প্রাইভেট বাসায় তল্লাশী চালাতে পরোয়ানা প্রাপ্ত হয়ে মাদক নিয়ন্ত্রণ বিভাগ সে বাসা থেকে একজন ভারতীয় মহিলাকে আটক করে এবং সেই বাড়িতে তল্লাশি চালিয়ে মাদক তৈরির সরঞ্জামাদি উদ্ধার করে ।

গ্রেপ্তারকৃত ব্যক্তিদের আরও তদন্তের জন্য কর্তৃপক্ষের কাছে রেফার করা হয়েছে এবং একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে।
(ছবি, আরব টাইমস থেকে সংগৃহীত )

Logo-orginal