, রোববার, ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২১

admin admin

রান তাড়ার রেকর্ড গড়ে বাংলাদেশকে হারিয়েছে উইন্ডিজ’

প্রকাশ: ২০২১-০২-০৭ ২১:১৯:০০ || আপডেট: ২০২১-০২-০৭ ২১:২৩:৪৬

Spread the love

অবিশ্বাস্য, অকল্পনীয় বা চোখ ধাঁধানো। এমন সব শব্দেও আসলে পূর্ণতা দেওয়া যাবে না কাইল মেয়ার্সকে।

পঞ্চম দিনের উইকেট, নিজের অভিষেক ম্যাচ। ৩৯৫ রান তাড়ায় চতুর্থ ইনিংসে যে ব্যাটিং করেছেন তিনি, বাংলাদেশের বোলারদের সমালোচনায় তাকে আড়াল করা যেন ক্রিকেটেই ছোট করা। চোয়ালবদ্ধ দৃঢ়তায় বড় ভূমিকা আছে এনক্রুমা বোনারেও। পরে সঙ্গ দিয়েছে জশুয়া ডি সিলভা।

সাকিব আল হাসানকে ছাড়া বাংলাদেশের বাকি বোলিং আক্রমণ ছিল ধারহীন । উইকেট থেকেও মেলেনি আহামরি সহায়তা। কিন্তু পরিস্থিতি, প্রেক্ষাপট বিচারে অসাধারণ মনোবল, দেখার মতো স্কিল আর প্রয়োগে সব ছাপিয়ে মেয়ার্সের ইনিংসের কোন স্তুতিই যেন যথেষ্ট নয়। উপমহাদেশের মাঠে রান তাড়ার রেকর্ড গড়ে বাংলাদেশকে হারিয়েছে উইন্ডিজ।

রোববার চট্টগ্রাম জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়াম সাক্ষী হয়ে থাকল একটি ক্লাসিক টেস্ট ম্যাচের। বাংলাদেশের জন্য তা অবশ্য চরম হতাশার। ৩৯৫ রান তাড়া করে যে ৭ উইকেটে জিতে গেছে তারা। সকল প্রেডিকশন ভুল করে সিরিজেও এগিয়ে গেছে ১-০ ব্যবধানে।

দলকে জিতিয়ে অভিষেকেই ২১০ রানে অপরাজিত ছিলেন মেয়ার্স। ২০ চারের সঙ্গে মেরেছেন ৭ ছক্কা। অভিষেকে ইতিহাসে তৃতীয় ডাবল সেঞ্চুরির ঘটনা এটি। আর চতুর্থ ইনিংসে কোন অভিষিক্ত ব্যাটসম্যানের এটাই সেরা ইনিংস। দলকে জেতাতে অবদান রাখা বোনার করেন ২৪৫ বলে ৮৬ রান।

এমন ম্যাচ জিতলে হবে একগাদা রেকর্ড। হয়েছেও তাই। টেস্ট ইতিহাসে এটি পঞ্চম সর্বোচ্চ রান তাড়ার ঘটনা। সর্বোচ্চ রান তাড়ার রেকর্ডটিও ওয়েস্ট ইন্ডিজের। ৪১৮ রান তাড়া করে অস্ট্রেলিয়াকে হারিয়েছিল তারা। তবে উপমহাদেশের মাঠে এটিই সর্বোচ্চ রান তাড়ার নজির। এর আগে চেন্নাইতে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে ৩৮৭ রান তাড়া করে জিতেছিল ভারত।

শেষ দিনে উইন্ডিজের হাতে ছিল ৭ উইকেট। জিততে হলে করতে হতো আরও ২৮৫। ড্র করতে হলে টিকতে হতো তিন সেশন। নামকরা ব্যাটসম্যান বলতে ছিলেন জার্মেইন ব্ল্যাকউড। কিন্তু দুই সেশন পর ব্যাটিং পেয়ে তিনি করতে পারলেন কেবল ৯ রান।

যাদের গায়ে আলো পড়েনি সেই মেয়ার্স আর বোনারই যে তুললেন আলোড়ন। চতুর্থ উইকেটে অবিশ্বাস্য জুটি উপহার দিলেন তারা। দুজনেই অভিষিক্ত। ইতিহাস দেখল দুই অভিষিক্তের দ্বিতীয় সর্বোচ্চ জুটির রেকর্ড।

সংক্ষিপ্ত স্কোর:

বাংলাদেশ প্রথম ইনিংস: ৪৩০

ওয়েস্ট ইন্ডিজ প্রথম ইনিংস: ২৫৯

বাংলাদেশ দ্বিতীয় ইনিংস: ২২৩/৮ (ইনিংস ঘোষণা)

ওয়েস্ট ইন্ডিজ দ্বিতীয় ইনিংস: (লক্ষ্য ৩৯৫) ১২৭.৩ ওভারে ৩৯৫/৭ (আগের দিন ১১০/৩) (বোনার ৮৬, মেয়ার্স ২১০*, ব্ল্যাকউড ৯, জশুয়া ২০, রোচ ০, কর্নওয়াল ০*; মোস্তাফিজ ০/৭১, তাইজুল ২/৯১, মিরাজ ৩/১১৩, নাঈম ১/১০৫)।

ফল : ওয়েস্ট ইন্ডিজ ৩ উইকেটে জয়ী।

সিরিজ : ২ ম্যাচ সিরিজে ওয়েস্ট ইন্ডিজ ১-০তে এগিয়ে।

ম্যান অব দ্য ম্যাচ : কাইল মেয়ার্স। সুত্রঃ ইনকিলাব ।

Logo-orginal